সেতুর মধ্যাংশ দেবে যাওয়ায় দুর্ভোগে কলমদার নদীর দুই পাড়ের মানুষ

উপজেলা প্রতিনিধি, ডোমার

উপজেলা প্রতিনিধি, ডোমার

১৪ জানুয়ারী, ২০২২, ৬ months আগে

সেতুর মধ্যাংশ দেবে যাওয়ায় দুর্ভোগে কলমদার নদীর দুই পাড়ের মানুষ

নীলফামারীর ডোমার উপজেলার কলমদার নদীর উপর নির্মিত সেতু দেবে যাওয়ায় চরম ভোগান্তিতে পড়েছে দুই পাড়ের মানুষ। জীবনের ঝুঁকি নিয়ে ঐ সেতু দিয়ে প্রতিদিন চলাচল করছে ভ্যান, ট্র‍্যাক, ট্রাক্টর, এম্বুলেন্স, মাইক্রোবাস সহ বিভিন্ন যানবাহন। অনেকে নিরাপদে গন্তব্যে পৌঁছাতে ঘুরে আসছেন ১৫ কি.মি. পথ। এতে নষ্ট হচ্ছে অর্থ ও সময়। স্থানীয়রা দ্রুত সেতুটি পুনঃনির্মাণের দাবী জানিয়েছেন।

জানা যায়, আশির দশকে ডোমার উপজেলার সাথে ঠাকুরগাঁও ও দিনাজপুর জেলার মধ্যে সড়ক পথে সংযোগ স্থাপনে ১০নং হরিণচড়া ইউনিয়নের হংসরাজ এলাকায় নির্মিত হয় সেতুটি। গত ৬ মাস আগে, কলমদার নদী খননের কারণে বর্ষাকালে নদীর প্রবাহিত পানির স্রোতে সেতুটির নিচের মাটি সরে যায়। এরফলে, সেতুটি আকস্মিকভাবে দেবে গিয়ে সেতুর মধ্যাংশ ভেঙে যায়।

জোড়াতালি দিয়ে স্থানীয়রা সেতু পারাপারের সাময়িক ব্যবস্থা করলেও প্রতিনিয়ত ঘটে চলেছে ছোট-বড় দুর্ঘটনা। এতে চরম ভোগান্তির শিকার হচ্ছেন ডোমার উপজেলার হরিণচড়া ও সোনারায় ইউনিয়ন সহ আশেপাশের কয়েকটি ইউনিয়নের লাখো মানুষ।

স্থানীয় বাসিন্দা সাহাবুল ইসলাম জানান, সেতুটি গত বর্ষায় দেবে যায়। কর্তৃপক্ষকে জানানো হলে, তারা কোনো ব্যবস্থা নেয় নি। এখন সেতুটি ভেঙে যেতে চলেছে। এতে সাধারণ মানুষের দুর্ভোগ পোহাতে হচ্ছে। হতে পারে বড়সড় কোনো দুর্ঘটনা। সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ যেন দ্রুত সেতুটি পুনঃনির্মাণ করে ঐতিহ্যবাহী কলমদার নদীর দুই পাড়ের মানুষকে মুক্ত করে, তার দাবী জানাই।

ডোমার উপজেলা প্রকৌশলী মোস্তাক আহমেদ জানান, কলমদার নদীর উপর সেতুটি ভেঙে যাওয়ার বিষয়টি ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষকে অবগত করা হয়েছে। বরাদ্দ এলে খুব দ্রুত সেতু নির্মাণের কাজ শুরু হবে।

ভিডিও দেখতে সাবস্ক্রাইব করুন

youtube
Patrika71.com
news