patrika71 Logo
ঢাকামঙ্গলবার , ১৭ আগস্ট ২০২১
  1. অনুষ্ঠান
  2. অপরাধ
  3. অর্থনীতি
  4. আইন-আদালত
  5. আন্তর্জাতিক
  6. আন্দোলন
  7. আবহাওয়া
  8. ইভেন্ট
  9. ইসলাম
  10. কবিতা
  11. করোনাভাইরাস
  12. কৃষি
  13. খেলাধুলা
  14. চাকরী
  15. জাতীয়
আজকের সর্বশেষ সবখবর

মাত্র আড়াই কিলোমিটার রাস্তার জন্য চরম দূর্ভোগে হাজারো মানুষ

পত্রিকা একাত্তর ডেক্স
আগস্ট ১৭, ২০২১ ৯:৩৬ অপরাহ্ণ
Link Copied!

ad

চাঁপাইনবাবগঞ্জের, নাচোল উপজেলার আখিলা গ্রাম মাত্র আড়াই কিঃ মিটার রাস্তা অল্প বৃষ্টিতে হাঁটু পযর্ন্ত কাদা হওয়ায় চরম দূর্ভোগে পড়েতে হয় হাজার হাজার মানুষকে।

২০০০ সালের পর পাঁচটি সংসদ সদস্য বদল হলেও বদল হয়নি আখিলা গ্রামের মানুষের ভাগ্য, যেন দেখার কেউ নেই নাচোল উপজেলার বরেন্দ্র ভুমির এই, গ্রামটিকে দেখে মন হয় অভিশাপ্ত একটি গ্রাম। নাচোল উপজেলার আখিলা গ্রাম যাওয়ার কোন রাস্তায় নয়, বর্ষা বদলের দিনে এ যেন আবাদি জমি -এই রাস্তা দিয়ে হাজার হাজার বিঘা জমির ধান সবজি তুলে নিয়ে আসেন কৃষকেরা। কিন্তু অল্প বৃষ্টিতে হাঁটু কাদার সৃষ্টি হওয়ায় বন্ধ হয়ে যায় সকল যান চলাচল। ফলে কৃষকদের পড়তে হয় চরম ভোগান্তিতে।

এই রাস্তা দিয়ে প্রায় প্রতিদিনই হাজার – হাজার মানুষ চলাফেরা করে, কিন্তু বছরের অধিকাংশ সময় কাদা থাকায় রাস্তাটি ব্যবহারের অনুপযোগি হয়ে পড়ায় কোন কাজে আসে না। বরই চাষী মোঃ সাব্বির, সবজি চাষি মোঃ নূর আলম, মাছ চাষী আব্দুর রাজ্জাক,ধান চাষী মোঃ হাবিবুর, ও পিয়ারা এবং আম চাষী আলতাফ আলী বলেন, অল্প বৃষ্টি হলেই মাত্র ২ কিঃ মিটার রাস্তায় এক হাঁটু কাদা হয়ে যায়। যার কারনে কোন যানবাহন চলাচল করতে পারে না। ফলে হাজার হাজার বিঘা জমির ধান-সবজিসহ অন্যান্য ফসল তুলে নিয়ে আসতে চরম বিপদের মুখে পড়তে হয়।

রাস্তাটিতে মাঝে মধ্যে লাখ লাখ টাকা খরচ করে চেয়ারম্যান মেম্বারেরা মাটি ভরাট করেন। মাটি ভরাট করে আরো কাদার সৃষ্টি হয় এতে সরকারের টাকা খরচ করে মানুষের কোন লাভ হয় না বরং ক্ষতি হচ্ছে। তাই রাস্তাটি পাকা করলে হাজার হাজার বিঘা জমির ফসল সহজেই তলে নিয়ে আসা যাবে। এই স্থানে অতি ঘনবসতিপূর্ণ অঞ্চল প্রায় ৪০০ টি ঘর বাড়ি রয়েছে গ্রামটিতে ও ৩০০০ বেশি মানুষ বসবাস করে।

এইদিকে ব্যবসা-বাণিজ্যের জন্য যাওয়ার রাস্তাটি বহুদিন থেকে অবহেলায় পড়ে আছে। সরকারী ভাবে পাকা করণের কোন উদ্যোগ নেয়া হয়নি। গুরুত্বপূর্ণ এ রাস্তাটি দিয়ে জ্ঞান পিপাসুরা জ্ঞান আহরণ করতে গেলে রাস্তার কারণে চরম দূর্ভোগে পড়তে হয়। রাস্তাটি পাকা করণ হলে কৃষক জ্ঞান পিপাসুসহ সকল মানুষের জন্য ভালো হবে।

কসবা ইউনিয়ন পরিষদের বতর্মান ওয়ার্ড সদস্য মোঃ ফজলুর রহমান জানান, হাট বাজার, স্কুল কলেজ, ডাক্তারের কাছে নিত্যদিনের আড়াই কিঃমিটার কাঁচা রাস্তা দিয়ে যেতে হয়। তাছাড়া এর আশে পাশে রয়েছে হাজার হাজার বিঘা ফসলি জমি। অল্প বৃষ্টিতে কাঁচা রাস্তাটি কাদা হয়ে যাওয়ায় কৃষকেরা তাদের ফসল তুলতে দূর্ভোগে পড়েন। ফলে তিনি রাস্তাটি পাকা করনের দাবী জানিয়েছেন।

কসবা ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান মোঃ আজিজুর রহমান জানান, আখিলা মোড় থেকে বেড়াচৌকি সমাজকল‍্যাণ এই আড়াই কিঃ মিটার রাস্তাটি জনগুরুত্বপূণ।এই রাস্তাটি পাকা না হওয়ার কারণে কৃষকদের হাজার হাজার বিঘা জমির ফসল তুলতে কষ্ট হয়। এদিকে ঐতিহাসিক গরুর হাট সোনাচন্ডী যাবার সোজাসুজি রাস্তা থেকে বঞ্চিত শত শত মানুষ। ফলে রাস্তাটি খুব গুরুত্বপূর্ণ। আমি সংশ্লিষ্ট উর্ধতন কর্তৃপক্ষের সাথে আলাপ করেছি, এবং আমার জানা মতে দেড় কিঃ মিটার রাস্তাটি বাজেট পাস হয়ে আছে। শুধু টেন্ডার বাকি আর টেন্ডার হয়ে গেলেই রাস্তাটি পাকা করণে মাত্র সময়ের ব‍্যপার।

বদিউজ্জামান রাজাবাবু: চাঁপাইনবাবগঞ্জ জেলা প্রতিনিধি।

ad