চোখ নষ্ট হয় যে ৫টি কারণে

চোখ আমাদের সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ অঙ্গ। চোখ নষ্ট হওয়া বা কম দেখতে পাবার চিন্তা আমরা ভুলেও করিনা। অথচ, প্রতিনিয়তই আমরা এমন কাজ করছি যার ফলে ক্ষতি হচ্ছে চোখের। তেমনি নিয়মিত করা হয় ৫ টি কাজের কথা আমরা জানবো যা করলে ক্ষতি হয় চোখের।

ভুল খাদ্যাভ্যাস

চোখ ভালো রাখতে চাইলে সবার আগে খাদ্যাভ্যাস সঠিক রাখতে হবে। পুষ্টিকর খাবারে থাকে এমন কিছু “মাইক্রোনিউট্রিয়েন্টস” যা কিনা চোখ ভালো রাখতে কাজ করে।

চিকিৎসকের মতে, চোখ ভালো রাখতে চাইলে ভিটামিন সি, জিঙ্ক, লুটেন, ওমেগা ৩ ফ্যাটি অ্যাসিড, জিয়েক্সানথিন সমৃদ্ধ খাবার খেতে হবে। সেইসঙ্গে মৌসুমী ফল, শাক, সবজি ইত্যাদি খেতে হবে বেশি বেশি।

প্রোটেকটিভ চশমা ব্যবহার না করা

বাড়িতে থাকলে সারাক্ষণ স্ক্রিনে চোখ, বাইরে বের হলে ধুলো আর দূষণ এর ফলে চোখ তো নষ্ট হবেই! তাই এক্ষেত্রে আপনাকে হতে হবে সতর্ক। চোখ ভালো রাখার জন্য পরতে হবে প্রোটেকটিভ চশমা।

এ ধরনের চশমা পরলে তা চোখের ওপর চাপ কম ফেলে। সেজন্য বিশেষজ্ঞরা কম্পিউটার স্ক্রিনের সামনে থাকলে বা বাইরে বের হলে অবশ্যই এই চশমা ব্যবহার করতে বলেন।

চোখকে বিশ্রাম না দেওয়া

শরীরের সব অঙ্গেরই দরকার পড়ে বিশ্রাম নেওয়ার। চোখও তার ব্যতিক্রম নয়। আমরা যখন একনাগাড়ে টিভি, কম্পিউটার, মোবাইলসহ বিভিন্ন গ্যাজেটের দিকে তাকিয়ে থাকি, আমাদের চোখের দরকার পড়ে বিশ্রাম নেওয়ার।

এরপর চোখে ব্যথা, জ্বালা, ড্রাই আই ইত্যাদি সমস্যা দেখা দিতে পারে। তাই একনাগাড়ে দীর্ঘ সময় কোনো স্ক্রিনের দিকে তাকিয়ে থাকবেন না। বরং চোখকে কিছু সময় বিশ্রাম দিন। চোখ বন্ধ করে কিছুক্ষণ শুয়ে থাকুন।

চোখ রগড়ানোর অভ্যাস

এই বদ অভ্যাস প্রায় সব মানুষেরই আছে। যখন তখন চোখ রগড়ানোর এই অভ্যাস আপনাকে বিপদে ফেলতে পারে, এমনটাই বলছেন বিশেষজ্ঞরা। আপাতদৃষ্টিতে নীরিহ এই কাজের কারণে চোখের ভেতরে লাগতে পারে আঘাত। আজই চোখ রগড়ানোর অভ্যাস বাদ দিন।

নিয়মিত চোখ পরীক্ষা না করা

আমরা কেবল চোখে সমস্যা হলেই চিকিৎসকের কাছে যাই। কিন্তু সুস্থ চোখ পেতে চাইলে নিয়মিত পরীক্ষা করা জরুরি। কারণ চোখে কোনো সমস্যা হলে প্রাথমিকভাবে তা বোঝা যায় না। নিয়মিত পরীক্ষা করালেই কেবল তা ধরা পড়ে। তাই বছরে অন্তত একবার চোখের পরীক্ষা করান।

সম্পর্কিত নিউজ

Comments

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

সর্বশেষ নিউজ