patrika71 Logo
ঢাকাশনিবার , ৩ জুলাই ২০২১
  1. অনুষ্ঠান
  2. অপরাধ
  3. অর্থনীতি
  4. আইন-আদালত
  5. আন্তর্জাতিক
  6. আন্দোলন
  7. আবহাওয়া
  8. ইসলাম
  9. কবিতা
  10. করোনাভাইরাস
  11. কৃষি
  12. খেলাধুলা
  13. চাকরী
  14. জাতীয়
  15. টেকনোলজি
আজকের সর্বশেষ সবখবর

ইস্তাম্বুলের খাল! এরদোগানের বিচক্ষনতা নাকি হটকারিতা?

পত্রিকা একাত্তর ডেক্স
জুলাই ৩, ২০২১ ১০:৩৪ পূর্বাহ্ণ
Link Copied!

তুরস্ক সহ আজকের বিশ্বের সব থেকে বড় হট টপিক এই ইস্তাম্বুলের প্রস্তাবিত খাল৷ যা নিয়ে তুরস্ক সহ পুরো বিশ্বে শুরু হয়ে গেছে না আলোচনা-সমালোচনা৷ এই বিষয়ে কিছু আলোকপাত করতে উৎসাহী হলাম৷ কোন ভুল তথ্য বা মতভেদ থাকলে ক্ষমাসুলভ ভাবে দেখে শুধরিয়ে দেয়ার আহবান থাকলো৷

ইস্তাম্বুলের খালকে বলা হয় এরদোগানের স্বপ্নের প্রযেক্ট, কেউ বলে ক্রেজি বা পাগলামীর প্রজেক্ট৷ এরদোগানের প্রজেক্ট বলে পরিচিত এই প্রজেক্টের স্বপ্ন সবার আগে যে দেখেন সে হলো অটোম্যান সাম্রাজ্যের অন্যতম শক্তিশালী শাষক সুলতান সুলেমান৷ তবে এখনকার খাল ইস্তাম্বুলের ইউরোপ সংলগ্ন অংশে হলেও তখনকার পরিকল্পনা ছিলো এশিয়া সংলগ্ন অংশে৷ যা একই কাজ করত৷ এর পরে ১৯৯০ এর দশকে এই খাল পুনরায় আলোচনায় আসে তখনকার সরকারের পরিকল্পনা মন্ত্রীর ভাষ্যে৷ তবে কারোর স্বপ্নই বাস্তবের ছোয়া পায় নি৷ এরপর ২০১১ সালে এরদোগান তার ইলেকশনের ইস্তেহারে এই খালের প্রতিশ্রুতি দিয়ে পুরো তুরস্কে হইচই ফেলে দেন৷

এবং বিপুলভাবে ইলেকশনে জয়ী হয়ে ক্ষমতায় আসেন তিনি৷ তখন তুরস্কের ফিনানশিয়াল কন্ডিশন এখনকার থেকে শক্ত অবস্থানে ছিলো, তবুও মসনদে আসীন হবার পর বিভিন্ন প্রতিবন্ধকতায় এই প্রযেক্ট এ হাত দিতে পারেনি এরদোগান৷ এখনকার চিত্র আলাদা, ইস্তাম্বুলের মেয়র এখন বিরোধীদলীয়, এই খালবিরোধী আন্দোলনের সব থেকে বড় মদদদাতা তিনি, যার সাথে যুক্ত হয় অন্যসব বিরোধী দল৷ তাই তুরস্কের মানুষ একসময় একে স্বপ্নের প্রজেক্ট ভাবলেও আজ এর বিরোধিতা করার লোকের অভাব নেই৷

এইবার এর সমস্যা ও সম্ভাবনা নিয়ে কিছু বলি৷ বসফরাস প্রনালী থাকতেও কেনো এই ইস্তাম্বুল খাল?

বসফরাস প্রনালী থেকে প্রতি বছর যাতায়াত করে প্রায় ৪৩ হাজার জাহাজ৷ যেখানে এর স্বাভাবিক ক্ষমতা বা প্রাকৃতিক চাহিদা ২৫ হাজার৷ মানে প্রতিবছর এর স্বাভাবিক চলাচল ক্ষমতার দ্বিগুন জাহাজ চলাচল করে বসফরাস প্রনালী থেকে৷ফলে এই প্রনালী পার হতে অধিকাংশ জাহজকে অপেক্ষা করতে হয় অনেকক্ষন৷ অপচয় হয় মুল্যবান সময়৷ তাই এর অস্তিত্ব হুমকির সম্মুখীন৷ কেনো বললাম হুমকীর সম্মুখীন তার কারন এই জাহাজ চলাচলের পরিমান ভবিষ্যৎ এ আরো বাড়বে বৈশ্বিক চাহিদা অনুযায়ী৷ তাই এর বিকল্প তৈরি সময়ের চাহিদা৷ অন্যদিকে বসফরাস প্রনালী থেকে কোন টোল আদায় করতে পারেনা তুরস্ক, অথচ খরচ করতে এর রক্ষনাবেক্ষন এর জন্য৷ তাই এই ইস্তাম্বুল খাল হতে পারে তুরস্কের ট্রামকাড৷ যার সংলগ্ম বেশ কিছু বড় বড় প্রজেক্ট তুরস্কের ফিনানশিয়াল কন্ডিশনে গতি আনতে পারে৷

অপরদিকে বিরোধীরা বলছে এই প্রজেক্ট এর ১০-১২ বিলিয়ন ডলার তুরস্কের রাজস্বে নেই শুধু একটা প্রজেক্ট এ খরচের জন্য, আবার বিদেশ থেকে ঋন নিলে তা বাড়াবে বৈদেশিক ঋনের পরিমান৷ ঝুকি বাড়বে ভুমিকম্প সহ নানা প্রাকৃতিক বিপযয়ের৷ তাই এই খাল এরদোগানের বিচক্ষনতা নাকি হটকারী সিদ্ধান্ত তা জানতে অপেক্ষা করতে হবে প্রজেক্ট এর শেষ হওয়া অব্দি এবং এর দ্বারা কিভাবে তুরস্ক ফায়দা লুটতে পারে তার উপর৷

ইফতেখার নাঈম তানভীর : মহেশখালী

এই সাইটে নিজম্ব নিউজ তৈরির পাশাপাশি বিভিন্ন নিউজ সাইট থেকে খবর সংগ্রহ করে সংশ্লিষ্ট সূত্রসহ প্রকাশ করে থাকি। তাই কোন খবর নিয়ে আপত্তি বা অভিযোগ থাকলে সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের সাথে যোগাযোগ করার অনুরোধ রইলো।